• Date: All Season Tour
  • Tour Package Name: TANGUAR HAOR PACKAGE 1 NIGHT 2 DAYS
  • Prices: Starting From BDT 4,000/-

টাঙ্গুয়ার হাওড় ভ্রমণ 2 Days 1 Night

ভ্রমণ খরচঃ
৪০০০/- টাকা প্রতি জন। (রাতে বোটে অবস্থান।)
৫০০০/- টাকা প্রতি জন। (রাতে কটেজে অবস্থান।)

বাংলাদেশের সবচেয়ে দর্শনীয় ও দ্বিতীয় বৃহত্তম হাওড় হলো সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলার টাঙ্গুয়ার হাওর। ভরা বর্ষায় যেন মায়াবী রূপে ধরা দেয় এ হাওড়।। হাওড়ের কোথাও চোখে পড়বে হরেক রকমের শাপলার মেলা, কখনো নানা গাছগাছিলির অপরুপ সাজ, কখনো মিলবে টলটলে নীল জলের খেলা আবার কখনো শান্ত হয়ে বয়ে চলা। ছবির মত সুন্দর বাউলাই নদী এর পথের সৌন্দর্য বাড়িয়ে দিয়েছে কয়েকগুন! সাথে রয়েছে মেঘালয়ের কোল ঘেঁষে বয়ে চলা মোহনীয় জাদুকাটা নদী আর বারিক্কা টিলা।

 

ভ্রমণের স্থান সমুহঃ
- টাংগুয়ার হাওড়
- নিলাদ্রী লেক
- বারিক্কা টিলা
- যাদুকাটা নদী
- লাকমা ছড়া
- শিমুল বাগান
- ট্যাকের ঘাট
- মেঘালয় পাহাড় সাইটসিং

ট্যুর প্ল্যানঃ
#প্রথম_দিনঃ তাহিরপুর পৌঁছে সেখান থেকে রিজার্ভ বোটে শুরু হবে আমাদের টাঙ্গুয়ার হাওড় যাত্রা । প্রথমেই চলে যাবো ট্যাকের ঘাট। একদমই সীমান্ত ঘেষা গ্রাম। হাওড়ের শেষ আর ভারতের মেঘালয় পাহাড়ের শুরু এখানে। চুনাপাথরের লেক নিলাদ্রী আর লাকমাছড়া দেখে ওয়াচ টাওয়ারে চলে আসবো। এখান থেকে পাখির চোখে দেখবো নয়নাভিরাম টাঙ্গুয়া। তারপর টাঙ্গুয়ার টল-টলে পানিতে চলবে আবগাহন। রাতে আমরা গোলাবাড়ি অবস্থান করবো। বোটে বা কটেজে যে কোন যায়গাতেই থাকতে পারবেন। রাতে মাঝ হাওড়ে অথৈ জলে ভেসে বেড়ানো বোট থেকে ফানুস উড়াবো আমরা।

#দ্বিতীয়_দিনঃ সকাল ১০টার মধ্যে বোট নিয়ে চলে যাবো বারিক্কা টিলা, বারিক্কা টিলা, শিমুল বাগান, মেঘালয় পাহাড় সাইট সিয়িং শেষে চলে আসবো পাহাড়ের কোল ঘেঁসে বয়ে চলা যাদুকাটা নদীতে। স্বচ্ছ-ঠান্ডা জলে গোসল শেষে সন্ধ্যার মধ্যে ফিরে আসবো তাহিরপুর। রাতের বাসে ঢাকার উদ্দেশ্যে যাত্রা।

 

 যা যা থাকছে এর মধ্যেঃ
- ঢাকা -সুনামগঞ্জ- ঢাকা নন এসি বাস টিকেট।
- রিজার্ভ বোট।
- রিজার্ভ লেগুনা।
- 1st day সকালের খাবার থেকে শুরু করে আসার দিন রাতের খাবার সহ প্রতিদিন ৩ বেলা খাবার। খাবারের ম্যানুতে থাকবে দেশী মাছ, দেশী মুরগী, হাসের মাংস। (প্রতি বেলায় যে কোন একটি।)
-কটেজ ভাড়া।
-লাইফ জ্যাকেট।

যা থাকছেনাঃ
- ঢাকা থেকে সুনামগঞ্জ আসা-যাওয়ার পথে বাসের যাত্রা বিরতিতে খাবার ।

কনফার্ম করার আগে যে ব্যাপার গুলো অবশ্যই বিবেচনা করতে হবেঃ

- কটেজের প্রতি রুমে ৪ জনের একোমডেশন। ৩টা খাট থাকবে। বড় খাটে ২ জন এবং সিংগেল ২টি খাটে ২ জন করে। ১টাই মাত্র কটেজ পুরো হাওড়ে। সব রুম একই প্যাটার্নের।

- বোটে যারা রাতে থাকবেন সবাইকে মিলে-মিশে থাকতে হবে। এটি ট্রলার টাইপের বড় বোট। তবে খুব রিলাক্সে থাকবো আমরা। প্রয়োজনে একের অধিক ট্রলার নেয়া হবে।

- বোটে বেড সহ ঘুমানোর ব্যবস্থা থাকবে।

- এটি আপাদমস্তক একটি রিলাক্স ট্যুর। তবে লাক্সারিয়াস ট্যুর নয়। যদিও টাঙ্গুয়া প্রকৃতির এক অসাধাণ সৃষ্টি তথাপি খুঁত-খুঁতে স্বভাবের হলে ট্যুরটি স্কিপ করুন।

- Kids Friendly নয়। শিশু তথা ১২ বছরের নিচে কাউকে নেয়া যাবে না।

- প্রতি বোটে একটাই টয়লেট থাকবে। এবং সেটা আহামরি কিছু নয়। তবে কটেজে পরিচ্ছন্ন টয়লেট ও ওয়াশরুম রয়েছে।

বুকিং মানি জমা দেওয়ার পদ্ধতিঃ

  •  সরাসরি অফিসে এসে বুকিং মানি জমা দেয়া যাবে।
  •  বিকাশ করা যাবে।
  •  ব্যাংক ডিপোজিট করে বুকিং করা যাবে।

Policy & Terms

Days : 2 | Nights : 1

Inclusions

Exclusions

Review

There are no reviews yet.